প্রতিদিনের বাংলাদেশ ডেস্ক:

ময়মনসিংহ -গফরগাঁও -টোক সড়কের ৭২ তম কিলোমিটারে নির্মিত বানার সেতুর শুভ উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।গতকাল বুধবার (১৬ অক্টোবর) ভিডিও করফান্সেরর মাধ্যমে ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসক এর সম্মেলন কক্ষে সকাল ১০ টায় সেতুটির শুভ উদ্বোধন করেন। মহাসড়ক অবকাঠামো উন্নয়ন ও সম্প্রসারণের মাধ্যমে দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নতি সাধন ও ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

এ লক্ষ্যে ময়মনসিংহ জেলার গফরগাঁও হতে ঢাকা যাতায়াতের গুরুত্বপূর্ণ মহাসড়কটি বানার নদী দ্বারা বিছিন্ন ছিলো।নদীটি ২৫০ মিটার প্রশস্ত হওয়ায় সওজ ফেরী চলাচলে দীর্ঘ সময় ও প্রতিকূল অাবহাওয়ার সময় বন্ধ থাকতো। ফলে জনগণ দূর্দশা লাগবের লক্ষ্যে গত ৩১ মার্চ ২০১১ সালে ময়মনসিংহ সফরকালে বানার নদীর উপর একটি সেতু নির্মাণের প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছিলেন এবং ২নভেম্বর ২০১৮ ময়মনসিংহে আবার সফরকালে তিনি সেতু নির্মাণ কাজের ভিওিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

ময়মনসিংহ সড়ক বিভাগাধীন ময়মনসিংহ -গফরগাঁও -টোক (জেড-৩০৩৩)সড়কের ৭২তম কিলোমিটারে বানার নদীর উপর ৩২৯০.৮০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ২৮২.৫৫৮মিটার দৈর্ঘ্যের সেতু নির্মাণের ফলে সড়ক যোগাযোগ সহজ ও সময় এবং ব্যয় সাশ্রয়ী হওয়ায় স্থানীয় জনমনে স্বস্তি ফিরে এসেছে।

এছাড়াও উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও উপস্তিত ছিলেন ময়মনসিংহের বিভাগীয় কমিশনার খোন্দকার মোস্তাফিজ রহমান এনডিসি, ময়মনসিংহের রেঞ্জ ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি,মহিলা সংরক্ষিত আসনের সাংসদ সদস্য মনীরা সুলতানা মনি,ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসক মোঃ মিজানুর রহমান, ময়মনসিংহ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট জহিরুল হক খোকা,

সাধারণ সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এহতেশামুল আলম,ময়মনসিংহ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান,ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন, ময়মনসিংহ সড়ক ও জনপদ অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী ওয়াহিদুজ্জামান ও ময়মনসিংহ বিভাগের এবং জেলার উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং বিভিন্ন ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকসহ প্রমুখ। বাস্তবায়ন করেন সড়ক ও জনপদ অধিদপ্তর সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ।উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আয়োজন করেন ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসন ও ময়মনসিংহ সড়ক বিভাগ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here